Home » শীর্ষ সংবাদ » জামায়াতে ইসলামি ও এসআইও-র দাবি মেনে মুহাম্মদ(স)এর ছবি প্রকাশের জন্য ক্ষমা চাইলেন প্রকাশক

জামায়াতে ইসলামি ও এসআইও-র দাবি মেনে মুহাম্মদ(স)এর ছবি প্রকাশের জন্য ক্ষমা চাইলেন প্রকাশক

জামায়াতে ইসলামি ও এসআইও-র দাবি মেনে মুহাম্মদ(স)এর ছবি প্রকাশের জন্য ক্ষমা চাইলেন শিশু বিকাশ পাবলিকেশনের প্রকাশক নীতিশ বিশ্বাস। তিনি টিডিএন বাংলাকে বলেন, “আমরা ক্ষমা প্রার্থী। এটা ভুল বসত হয়েছে।আমরা এই বই বাজেয়াপ্ত করেছি। সব বই বাজার থেকে তুলে নেওয়া হবে।”

দ্বিতীয় শ্রেণীর ‘মানব সভ্যতার ইতিহাস’ এর ১৫ নম্বর পাঠের ‘হযরত মহম্মদ’ এ যে ছবি দেওয়া হয়েছে তা নিয়ে মুসলিম সমাজের মধ্যে আপত্তি ওঠে। এরপর মঙ্গলবার কলেজ স্ট্রিটে প্রকাশকের সাথে দেখা করেন জামায়াতে ইসলামি হিন্দ ও এসআইও-র এক প্রতিনিধি দল। ওই সংগঠনের নেতারা বলছেন, ইসলাম শান্তির কথা বলে। সেই জন্য আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করার জন্য বলা হয়েছে। এদিন সন্ধ্যায় জামায়াতে ইসলামীর অফিসে একটি বৈঠক করেন ওই পাবলিকেশনের কর্তৃপক্ষ। এই সভায় সিদ্ধান্ত হয়, বাজার থেকে সমস্ত বই তুলে নেওয়া হবে।

কর্তৃপক্ষ এই ঘটনার জন্য ক্ষমা চান।এসআইও-র গণসংযোগ সম্পাদক সুজাউদ্দিন আহমেদ টিডিএন বাংলাকে বলেন, “পাবলিকেশন কর্তৃপক্ষ ক্ষমা চেয়ে নিয়েছেন।সুতরাং ক্ষমা সুন্দর পৃথিবীতে ক্ষমা করে দেওয়া উচিত। আসলে আলোচনার মাধ্যমে সব সমস্যার সমাধান করতে হয়। মানুষ মাত্রই ভুল হয়, আর প্রতিটি মানুষের উচিত ক্ষমা চাইলে ক্ষমা করে দেওয়া। এটাই ইসলামের শিক্ষা।”

কলেজ স্ট্রিটে কর্তৃপক্ষকে নিয়ে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন জামায়াতে ইসলামী হিন্দের দাওয়াত বিভাগের সম্পাদক মুহাম্মদ তাহেরুদ্দিন, এসআইও-র অফিস সেক্রেটারি আজম হোসেন। অন্যদিকে জামায়াতের অফিসের আলোচনায় অংশ নিয়েছিলেনশিশু বিকাশ পাবলিকেশনের প্রকাশক নীতিশ দাস, বিআইপিটির সেক্রেটারি নাসিম আলি,লেখক হেলাল উদ্দিন, জামায়াতে ইসলামীর অফিস সেক্রেটারি সাবির আলি ছাড়াও প্রকাশনীর চার প্রতিনিধি।

টিডিএন বাংলা

মন্তব্য

আপনার ইমেইল গোপন থাকবে - আপনার নাম এবং ইমেইল দিয়ে মন্তব্য করুন, মন্তব্যের জন্য ওয়েবসাইট আবশ্যক নয়

*

Open

Close