Home » রাজনীতি » সিনহার রোগ নির্ন​য় ও চিকিৎসা দিচ্ছে সরকারের মন্ত্রীরা !

সিনহার রোগ নির্ন​য় ও চিকিৎসা দিচ্ছে সরকারের মন্ত্রীরা !

প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহাকে ‘গৃহবন্দি’ করে রাখা হয়েছে বলে দাবি করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ। তিনি বলেন, ‘এর মাধ্যমে সরকার বিচার বিভাগের স্বাধীনতার মৃত্যু ঘটিয়েছে। তার বাসার টেলিফোন লাইনটিও বিচ্ছিন্ন। তাকে বিদেশে পাঠিয়ে দেওয়ার ষড়যন্ত্র করছে’।

বৃহস্পতিবার (৫ অক্টোবর) দুপুরে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্য দিতে গিয়ে মওদুদ আহমদ এই মন্তব্য করেন। ‘নগ্ন দলীয়করণে বিপর্যস্ত শিক্ষা ব্যবস্থা’ শীর্ষক এ সেমিনারের আয়োজন করে শিক্ষক-কর্মচারী ঐক্যজোট।
সেমিনারে মওদুদ বলেন, ‘ষোড়শ সংশোধনীর রায়কে কেন্দ্র সরকারের মন্ত্রী-এমপিরা যে ভাষায় কথা বলেছেন, তার নজির পৃথিবীর কোথাও নেই। এখন তার অসুস্থতার কথা বলে তার অসম্মতিতে একমাসের ছুটি দিয়ে দেওয়া হয়েছে। অথচ কিছুদিন আগে তিনি জাপান, কানাডা থেকে ঘুরে এসেছেন। তিনি সুস্থ একজন মানুষ’।

গণমাধ্যমে আইনমন্ত্রীর দেখানো এস কে সিনহার চিঠিকে ‘ভুয়া’ অভিহিত করে বিএনপির জ্যেষ্ঠ এই নেতা বলেন, ‘চিঠিতে পাঁচটি বানান ভুল। এই ভুল চিঠি দেখে কোনও প্রধান বিচারপতি স্বাক্ষর করতে পারেন না।’ প্রধান বিচারপতি সচরাচর যে স্বাক্ষর করেন, গণমাধ্যমে দেখানো চিঠির স্বাক্ষরের সঙ্গে তার মিল নেই দাবি করে মওদুদ বলেন, ‘লজ্জা লাগে, রাষ্ট্রের উচ্চ পর্যায় থেকে এই ধরনের ভুয়া ও জালিয়াতি তথ্য দিয়ে জনগণকে ধোঁকা দেওয়া হয়। কিন্তু মূলত তিনি ছুটি চাননি। ছুটিতে যাওয়ার বিষয়ে তিনি সম্মতও ছিলেন না’।

প্রধান বিচারপতির সঙ্গে কাউকে সাক্ষাৎ করতে দেওয়া হচ্ছে না অভিযোগ করে প্রবীণ এই আইনজীবী বলেন, ‘আইনজীবীরা তার সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে গেলে বলা হয়েছে তিনি অসুস্থ। তার আত্মীয়-স্বজনদের দেখা করতে দেওয়া হচ্ছে না। তার বাসার টেলিফোন লাইনটিও বিচ্ছিন্ন। তাকে বিদেশে পাঠিয়ে দেওয়া ষড়যন্ত্র করছে সরকার’।

সেমিনারে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘প্রধান বিচারপতি ছুটি নেননি। তাকে দায়িত্ব থেকে বিরত থাকতে বাধ্য করা হয়েছে। বন্দুকের নল দিয়ে তাকে (প্রধান বিচারপতি) আটকে রাখা হয়েছে; অথবা এখন কোন পরিবেশে তিনি রয়েছেন, আমরা জানি না’।

আয়োজক সংগঠনের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ সেলিম ভূইয়ার সভাপতিত্বে সেমিনারে আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, প্রকৌশলী মাহমুদুর রহমান, শিক্ষাবিদ ড. সদরুল আমিন, সাংবাদিক আবদাল আহমেদ, শিক্ষক নেতা বাহাউদ্দিন বাহার প্রমুখ।
সূত্র : বাংলামেইল ৭১

মন্তব্য

আপনার ইমেইল গোপন থাকবে - আপনার নাম এবং ইমেইল দিয়ে মন্তব্য করুন, মন্তব্যের জন্য ওয়েবসাইট আবশ্যক নয়

*

Open

Close