আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এক দলের হয়েই খেলা দুইজন ভাইয়ের গল্প

0 139

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এক ভাইয়ের দুই দলের হয়ে খেলা নতুন কিছু না। তবে আজকে এমন কিছু তারকাদের কথা লিখা হলো যারা কিনা আপন দুই ভাই জাতীয় দলে খেলেছেন বেশ কিছুদিন ধরেই।

স্টিভ ওয়াহ এবং মার্ক ওয়াহ। বিশ্ব ক্রিকেটের সবচেয়ে জনপ্রিয় সহোদর জুটি যদি বলা হয় অনেকেই উনাদের নাম নিবেন।৯০এর দশক থেকে ২০০০ শতকের শুরুর দিক পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটের জন্য অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ জুটি ছিলেন এই দুই ভাই।স্টিভ ওয়াহ ছিলেন সেমি অল রাউন্ডার এবং মার্ক ছিলেন ব্যাটসম্যান।

এইবার জেনে নিব অজিদের হয়ে এই দুইভাইয়ের কিছু জানা অজানা তথ্য। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে এক সাথে খেলেছেন ১০৮ টি টেস্ট ম্যাচ। এক সাথে মিলে ১৮০০০ রান করেছেন টেস্টে। দুইজনের মোট সেঞ্চুরির সংখ্যা ৫২টি। স্টিভ ওয়াহ প্রথম অভিষেক হয় এবং মার্ক এর অভিষেক আরো পরে।

এন্ডি ফ্লাওয়ার এবং গ্রান্ড ফ্লাওয়ার:জিম্বায়ুরের ক্রিকেট ইতিহাসের কিংবদন্তী বলা হয় এই দুইজনকে।উনারা জিম্বাবুয়ের ক্রিকেট টাকেই পালটে দিয়েছিলেন অন্য রকম ভাবে।এন্ডি ছিলেন উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান এবং গ্রান্ড ছিলেন লেফ্ট আর্ম স্পীন বোলার এবং ব্যাটসম্যান।এন্ডি ফ্লাওয়ার ছিলেন বড় ভাই আর গ্রান্ট ছিলেন ছোট ভাই।

উইকেটের পেছনে দাঁড়িয়ে এন্ডি ডিসমিসাল করেছিলেন ১৫১টি আর গ্রান্ড হাত ঘুরিয়ে নিয়েছিলেন ২৫ টেস্ট উইকেট।
শন মার্শ এবং মিচেল মার্শ:ক্রিকেটার বাবা জিওফ মার্শের দুই ছেলে শন ও মিচেল!সাম্প্রতিক সময়ে ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম জনপ্রিয় জুটি এই দুই ভাই।শন বড় এবং মিচেল ছোট। দুইজন ই এখনো আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলে যাচ্ছেন।

শন মার্সের ২৩ ম্যাচ খেলে ফেলার পর ২১ নাম্বার ক্যাপ মাথায় নিয়ে অভিষেক হয় মিচেলের। দুইজনে এক সাথে খেলেছেন ৭টি ম্যাচ যার মধ্যে ৪টি ম্যাচ জয়ী অজিরা। মিচেল মূলত ডানহাতি পেস বোলার এবং ব্যাটসম্যান এবং শন বাম হাতি ব্যাটসম্যান।
সুরিন্দর অমরনাথ এবং মহিন্দর অমরনাথ। বিখ্যাত খেলোয়াড় লালা অমর নাথের সন্তান সুরিন্দর এবং মহিন্দর।লালা অমরনাথ ভারতীয়দের মধ্যে সর্বপপ্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি করেন।ভারতীয় সহোদরদের মধ্যে এই দুই ভাই প্রথম একসাথে খেলেন।সুরিন্দর ছিলেন ২ বছরের বড় মহিন্দর থেকে।এছাড়া ও তাঁদের আর ১ ভাই রাজিন্দর প্রথম শ্রেনীর ক্রিকেট খেলেছেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.