বিচারকের উদ্দেশ্যে আল্লামা সাঈদীর বক্তব্য দেয়ার সময় আদালতে পিন পতন নীরবতা!

0

বিশ্ববরেণ্য এবং অত্যান্ত জনপ্রিয় মুফাসসিরে কোরান আল্লামা দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী হাফিজাহুল্লাহকে সকাল সাড়ে ৯ টায় রাজধানীর পুরান ঢাকার বকশীবাজারের আলীয়া মাদ্রাসা মাঠে স্থাপিত অস্থায়ী বিশেষ জজ আদালত-১ এ হাজির করা হয়। মিথ্যে ও বানোয়াট মামলায় চার্জ গঠনের দিন ধার্য্য ছিলো।

প্রসিকিউশন ও আইনজীবীদের যুক্তিতর্ক শেষে আদালতের অনুমতিক্রমে অন্যায়ভাবে চার্জ গঠনের ব্যাপারে আল্লামা সাঈদী আদালতে সংক্ষিপ্ত কথা বলেন। এ সময় পুরো আদালত জুড়ে পিন পতন নীরবতা ছিল লক্ষণীয়। আদালতের উদ্দেশে আল্লামা সাঈদী বলেন -‘রাজনৈতিক প্রতিহিংসা, হয়রানী ও আমার চরিত্রহননের হীন উদ্দেশ্যেই ‘যাকাতের টাকা আত্নসাতের’ মতো নিকৃষ্ট মিথ্যা মামলায় অন্যায়ভাবে আমাকে জড়ানো হয়েছে।

আমার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগের সাথে আমার বিন্দুমাত্র সম্পর্ক নেই। আমি আমার আল্লাহকে স্বাক্ষী রেখে বলছি, যাকাতের এই টাকা আমি দেখি নাই, ধরি নাই, তালিকা করি নাই, বিতরণও করি নাই।’সবাইকেই একদিন মৃত্যুবরণ করতে হবে।

অন্যায়ভাবে যারা আমার প্রতি জুলুম করছেন তাদেরকে অবশ্যই আল্লাহর আদালতে আসামীর কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হবে। আর আল্লাহ ও তাঁর রাসুল (ﷺ)-এর ওয়াদা অনুযায়ী মিথ্যা স্বাক্ষ্যদানকারীরা হবে জাহান্নামী।’মাননীয় আদালত! আমার বয়স ৮২ বছর। আমি শারিরীকভাবে অসুস্থ। আমি হার্ট, ডায়াবেটিস ও উচ্চ রক্তচাপের পেশেন্ট। আমি নির্দোষ।

আমি আপনার কাছে ন্যায় বিচার প্রত্যাশা করি। আপনি ন্যায় বিচার করুন এবং ন্যায় প্রতিষ্ঠা করুন। বয়স ও শারিরীক অসুস্থতা বিবেচনা করে হলেও মিথ্যা বানোয়াট ও হয়রানীমূলক এই নিকৃষ্ট মামলা থেকে আমাকে অব্যহতি দিন। আল্লাহকে ভয় করুন।’

Leave A Reply